কে কিনছেন পৌনে ১৩ কোটি টাকার মাস্ক?

কে কিনছেন পৌনে ১৩ কোটি টাকার মাস্ক?

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:৪৮ ১৩ আগস্ট ২০২০   আপডেট: ১৬:৫৮ ১৩ আগস্ট ২০২০

প্রায় পৌনে ১৩ কোটি টাকার মাস্কটিতে ব্যবহার হবে সাদা সোনা ও তিন হাজার ৬০০ কালো ও সাদা হীরা।

প্রায় পৌনে ১৩ কোটি টাকার মাস্কটিতে ব্যবহার হবে সাদা সোনা ও তিন হাজার ৬০০ কালো ও সাদা হীরা।

ভারতের কেরালায় আড়াই লাখ টাকার সোনার মাস্ক কেনায় হইচই শুরু হয়েছিল। এবার প্রায় পৌনে ১৩ কোটি টাকা খরচ করে সোনা-হীরার মাস্ক কিনছেন চীনের এক ব্যবসায়ী। আর খবরটি ছড়িয়ে পড়ার আবারো হইচই শুরু হয়েছে। খবরটি প্রকাশের পর সবার আগ্রহ যে, এতো দামি মাস্কটি কে কিনতে যাচ্ছেন?

মাস্কের ডিজাইনার ইসাক লেভি সংবাদ মাধ্যম ইন্ডিপেনডেন্টকে জানান, দেড় মিলিয়ন মার্কিন ডলার অর্থ্যাৎ বাংলাদেশি টাকায় প্রায় পৌনে ১৩ কোটি টাকার মাস্কটির অর্ডার করেছেন চীনের এক ব্যবসায়ী।  তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করছেন।  তবে বিশেষ কারণে ব্যবসায়ীর পরিচয় প্রকাশ করতে রাজি হননি ইসাক লেভি।

পৌনে ১৩ কোটি টাকার মাস্কের ডিজাইনের পাশে দাঁড়িয়ে আছেন ডিজাইনার ইসাক লেভি।

তিনি আরো জানান, ২৭০ গ্রামের মাস্কে এন-৯৫ ফিল্টার স্থাপন করা থাকবে। সাদা সোনার সঙ্গে তিন হাজার ৬০০ টি কালো ও সাদা হীরার ব্যবহার হবে মাস্কে।  যার দাম পড়বে দেড় মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

লেভির মতে, টাকা দিয়ে সম্ভবত সবকিছু কেনা যায় না।  তবে বিশ্বের সবচেয়ে দামি মাস্ক পরে সড়কে হাঁটলে সবাই তার দিকে মনোযোগ দেবে।  আর পরিধানকারী নিজে খুশি হবে।

লেভি বলেন, এ মাস্ক আমাদের কর্মীদের প্রচুর কাজের ব্যবস্থা করেছে। এতে আমি আনন্দিত। এ সময়ে মাস্কটি তৈরি সত্যিই চ্যালেঞ্জিং।  এ মাস্কের জন্য ২৫ জন স্বর্ণের কারিগর ও হীরা স্থাপনকারীকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে।  তারা ধাপে ধাপে কাজ সম্পন্ন করছেন।  আগামী ৩১ ডিসেম্বর মাস্কটি হস্তান্তর করা হবে।  এ তারিখের কোনো পরিবর্তন করা হবে না।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ