Alexa কাস্তে দিয়ে ৯ মাসের নাতনিকে কোপ দিলেন নানা

কাস্তে দিয়ে ৯ মাসের নাতনিকে কোপ দিলেন নানা

রাজৈর (মাদারীপুর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৭:২৬ ১৩ নভেম্বর ২০১৯  

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

মাদারীপুরের রাজৈরে নানার কাস্তের আঘাতে নিহত হয়েছে নয় মাসের নাতনি মরিয়ম। বুধবার সকাল ৮টার দিকে উপজেলার সাতবাড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মরিয়ম মাদারীপুর সদর উপজেলার কুচিয়ামড়া গ্রামের জাহাঙ্গীর শেখের মেয়ে।

এলাকাবাসী জানায়, বুধবার সকাল ৮টার দিকে পারিবারিক কলহের জের ধরে উপজেলার সাতবাড়িয়া গ্রামের করম ফরাজী, স্ত্রী ফয়জুন বেগম ও তার মেয়ে জাপানি বেগমের ঝগড়া হয়। এ সময় জাপানির কোলে থাকা নয় মাসের শিশু কন্যা মরিয়ম ছিল।

ঝগড়ার একপর্যায়ে নানার হাতে থাকা কাস্তে দিয়ে নাতনি মরিয়মের মাথায় আঘাত লাগে। আহতাবস্থায় মরিয়মকে উদ্ধার করে রাজৈর হাসপাতালে নিলে সে মারা যায়। নিহতের মা জাপানি বেগম বিয়ের পর প্রায় ১০ বছর ধরে বাবার বাড়ি থাকতেন।

নিহত শিশু কন্যা মরিয়মের বাবা জাহাঙ্গীর জানান, আমার স্ত্রী জাপানি বেগম ও শাশুড়ি ফয়জুন বেগম ঝগড়া করছিলেন। এ সময় আমার শ্বশুর করম ফরাজী কৃষি মাঠ থেকে এসে এ ঝগড়ায় লিপ্ত হন এবং ক্ষিপ্ত হয়ে আমার স্ত্রী জাপানিকে হাতে থাকা কাস্তে দিয়ে কোপ দেন। কিন্তু সেই কোপ জাপানির গায়ে না লেগে আমার শিশু কন্যা মরিয়মের মাথায় লাগে।

রাজৈর হাসপাতালের ডা. সুবাস সরকার জানান, আমরা ওই শিশুকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর পাঠানোর সময় সে মারা যায়। 

রাজৈর থানার ওসি মো. শাহজাহান জানান, শিশু কন্যার মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি আইনি প্রক্রিয়াধীন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম