কামড়ের তাণ্ডব চালানো সেই পাগলা কুকুরকে পিটিয়ে মারলো জনগণ

কামড়ের তাণ্ডব চালানো সেই পাগলা কুকুরকে পিটিয়ে মারলো জনগণ

কুমিল্লা প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২০:০০ ৫ জুন ২০২০  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার ষোলনল ইউপির ছয়গড়িয়া, রামনগর,পূর্ব হুড়া, ইছাপুড়া, ভরাসার, মহিষমারা, খাড়াতাইয়াসহ আরো কয়েকটি গ্রামে গত দুই দিন ধরে একটি পাগলা কুকুর তাণ্ডব চালিয়েছে। 

কুকুরটি প্রায় শতাধিক নারী পুরুষ ও শিশুকে কামড়ে মারাত্মকভাবে আহত করেছে। আহতদের বুড়িচং উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং কুমিল্লা বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। 

শুক্রবার সকাল ১০টায় পাগলা কুকুরটিকে ইছাপুরা গ্রামের আক্তার হোসেন মেম্বার ও পয়াত গ্রামের বাদল খা মেম্বারের নেতৃত্বে স্থানীয় লোকজন লাঠি দিয়ে পিটিয়ে মেরে ফেলে। 

বুড়িচং উপজেলা ছাত্র লীগ নেতা সোলেমান জানান, কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার ষোলনল ইউপির ছয়গড়িয়া গ্রামে গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার সময় হঠাৎ উসমান গনির বাড়ির রাশেদ মিয়ার মেয়ে সাদিয়া আক্তার নামে এক স্কুলছাত্রীকে প্রথম কামড়ে মারাত্মকভাবে আহত করে কুকুরটি। পরে একে একে ছয়গড়িয়া গ্রামের ১০-১২ জনকে কামড়ে আহত করে। 

একই দিন  রাতে বিভিন্ন গ্রামে এই পাগলা কুকুরটি দৌড়ে দৌড়ে যাকে যেখানে পেয়েছে সেখানে তাকে কামড়ে পালিয়ে গেছে। অনেক মানুষের পা থেকে কামড়ে মাংস উঠিয়ে নিয়ে গেছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা থেকে শুক্রবার সকাল পর্যন্ত কুকুরটি ৬-৭ টি গ্রামের শতাধিক লোককে কামড়ে আহত করেছে।  আহতদেরকে  বুড়িচং উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং কুমিল্লা বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

শুক্রবার বেলা ১১টায় স্থানীয় লোকজন কুকুরটিকে  ইছাপুরা গ্রামে ঘেরাও করে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে মেরে ফেলে। 

বুড়িচং উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. মীর হোসেন মিঠু বলেন, একটি পাগলা কুকুর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা থেকে শুক্রবার সকাল পর্যন্ত ৬-৭টি গ্রামের লোকজন কামড়ে আহত করেছে। বুড়িচং উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রায় ২০ জনের চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। অধিকাংশ লোকের সেলাই করা হয়েছে। প্রত্যেককে ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে। 

এ ব্যাপারে বুড়িচং থানার ওসি মো. মোজাম্মেল হক বলেন, খবরটি স্থানীয় জন প্রতিনিধি ও সাধারণ লোকের মাধ্যমে পেয়েছি। পাগলা কুকুরটিকে আটকের বিষয় বলছি এবং বন বিভাগের সঙ্গে যোগাযোগের সময় জানতে পারি স্থানীয় লোকজন কুকুরটিকে মেরে ফেলেছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ