Alexa কাউকে নিরাপত্তাহীনতা সৃষ্টির সুযোগ দেবে না ইরান: রুহানি

কাউকে নিরাপত্তাহীনতা সৃষ্টির সুযোগ দেবে না ইরান: রুহানি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:২৬ ১৮ নভেম্বর ২০১৯   আপডেট: ১৩:২৭ ১৮ নভেম্বর ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, তার প্রশাসন পেট্রোল দাম বৃদ্ধি নিয়ে সাম্প্রতিক সরকারের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে জনগণের বিক্ষোভ করার অধিকারকে স্বীকৃতি দিয়েছে। কারণ প্রতিবাদ সমাবেশ করা মানুষের স্বাভাবিক অধিকার।

তবে তিনি জোর দিয়ে বলেছিলেন যে, কাউকে সমাজে নিরাপত্তাহীনতা ছড়াতে দেয়া হবে না। কারণ প্রতিবাদ আর দাঙ্গাবাজি করা এক জিনিস না।

রোববার ইরানের রাজধানী তেহরানে মন্ত্রিসভার এক বৈঠকের বক্তব্যে রুহানি এ কথা বলেন।

দেশটিতে গত শুক্রবার রাতে তেলের বর্ধিত মূল্য কার্যকর করা হয়। হঠাৎ করেই পেট্রোলের দাম বেড়ে যাওয়ায় বিক্ষোভে দেশটির সাধারণ মানুষ বিক্ষোভ শুরু করে।

ইরানের প্রেসিডেন্ট বলেন, সরকারের নেয়া এই পরিকল্পনা বাস্তবায়নের পরে আমরা দেখেছি ইরানের রাজধানীসহ বেশ কয়েকটি শহরে মানুষ প্রতিবাদ করতে রাস্তায় নামে। বিক্ষোভ শুরু করে।  

আমি বিশ্বাস করি প্রশাসন যখন কোনো পরিকল্পনা প্রয়োগ করে সেখানে সবাই সম্মত নাও হতে পারে। এটি স্বাভাবিক। তবে এ বিষয়কে কেন্দ্র করে সুযোগসন্ধানী কিছু লোক বিক্ষোভের নামে জনগনের জানমালের ব্যাপক ক্ষতি সাধন করছে। প্রতিবাদের নামে এরকম নাশকতার বিরুদ্ধে তিনি হুঁশিয়ারি করেছেন।

তিনি আরো বলেন,সরকার যা করেছে তা আইন অনুসারে করেছে... সরকারের তিন বিভাগের ঐক্যমতের ভিত্তিতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

ইরানের সরকারের নতুন সিদ্ধান্ত অনুসারে, প্রতি লিটার পেট্রল ১৫ হাজার রিয়াল দরে প্রতি মাসে মোট ৬০ লিটার লিটার পেট্রল কিনতে পারবেন মোটরযান মালিকরা। এর আগে এক ব্যক্তি ১০ রিয়ার দরে মোট ২৫০ লিটার পেট্রল কিনতে পারতেন।

দেশটির কৃতপক্ষ বলেছে, পেট্রলে ভর্তুকি বাদ দিয়ে সরকার যে পরিমাণ অর্থ আয় করবে তা দিয়ে নিম্ন আয়ে দরিদ্র পরিবারকে সহয়তা দেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএএইচ