করোনায় মুজিববর্ষ স্মরণে ২৪ ফুট দৈর্ঘ্যের ঘুড়ি

করোনায় মুজিববর্ষ স্মরণে ২৪ ফুট দৈর্ঘ্যের ঘুড়ি

নান্দাইল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:৩৬ ৩ জুন ২০২০   আপডেট: ১৯:১৬ ৩ জুন ২০২০

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

সারাদেশ যখন লকডাউন কাটিয়ে সীমিত পরিসরে খুলতে শুরু করেছে কর্মক্ষেত্র। ঠিক সেই মুহূর্তে গ্রামাঞ্চলে অনেকটা অলস সময় পার করছেন সাধারণ মানুষ। আর সেই অলস সময়টা কাজে লাগিয়ে বঙ্গবন্ধুপ্রেমী কিছু যুবক তৈরি করলেন ২৪ ফুট দৈর্ঘ্যের ১৫ ফুট প্রস্থের বিশাল ঘুড়ি।

ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার খারুয়া ইউপির রাজাপুর গ্রামে। 

ঘুড়ি তৈরির প্রধান উদ্যোক্তা মামুন মিয়া রাজাপুর গ্রামের গিয়াসউদ্দিনের ছেলে। তার সঙ্গে শ্রম ও মেধা দিয়ে সহযোগিতা করেছেন নিউ মডেল বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্রলীগের সদস্য তরিকুল ইসলাম সজীব, এলাকার যুবক হিরণ ও আব্দুল হাকিম।             

এ বিষয়ে মামুন মিয়া বলেন, এখন তো আমাদের কোনো কাজ কর্ম নেই, করোনার কারণে হাট বাজারেও আড্ডা দিয়ে সময় কাটানোর সুযোগ নেই। এলাকার বিভিন্ন বয়সী মানুষ ঘুড়ি উড়াচ্ছেন। তা দেখে করোনার সময়টা স্মৃতিময় করে রাখতে মুজিব শতবর্ষকে উৎসর্গ করে আমরা এই ঘুড়ি তৈরি করেছি।        

তিনি আরো বলেন, ঘুড়িটি তৈরি করতে ৮ দিন কাজ করেছি সব মিলেয়ে  আমাদের ৮ হাজার টাকা খরচ হয়েছে। 

ছাত্রলীগ সদস্য সজীব বলেন, কলেজ বন্ধ থাকায় আমরা সম্মিলিতভাবে এই কাজটি করতে পেরেছি, আমাদের প্রচেষ্টা ছিল করোনার প্রভাবে হারিয়ে যাওয়া মুজিব শতবর্ষকে স্মরণীয় করে রাখার।

মঙ্গলবার  রাত ১১টায় আমরা ২৫ জন মিলে ঘুড়িটি কিছুক্ষণের জন্য আকাশে উড়িয়েছিলাম। নিয়ন্ত্রণ করা খুবই কঠিন ছিল। আবহাওয়া অনূকূলে থাকলে বুধবার দিনের বেলা আবার আকাশে উড়াব।

অফিসিয়াল দায়িত্ব পালনে চলার পথে ময়মনসিংহ ডিএসবি'র  এসআই দেলোয়ার হোসেন খান ঘুড়ি দেখে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে বলেন, করোনার ক্রান্তিকালে মুজিব শতবর্ষকে স্মরণীয় করে রাখতে আপনাদের এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানাই। 

খারুয়া ইউপি চেয়ারম্যান কামরুল হাসনাত মিন্টু বলেন, দেশের এই করোনা মহামারিতে শতবর্ষের রাষ্ট্রীয় কর্মসূচিগুলো স্থগিত হয়ে গেছে। আর এই মুজিব শতবর্ষকে স্মরণীয় করে রাখতে স্থানীয় যুবকদের এমন উদ্যোগ অবশ্যই প্রসংশার দাবি রাখে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ