কম দামে চামড়া কিনেও বিক্রি করতে পারেনি

কম দামে চামড়া কিনেও বিক্রি করতে পারেনি

রাজশাহী প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৭:২১ ২ আগস্ট ২০২০   আপডেট: ১৭:২৪ ২ আগস্ট ২০২০

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

কোরবানির পশুর চামড়া কিনে লোকসানে পড়েছেন অনেক চামড়া ব্যবসায়ী। কম দামে চামড়া কিনেও বিক্রি করতে না পারায় কপালে চিন্তার ভাজ পড়েছে মৌসুমি ব্যবসায়ীদেরও। আর এসব চামড়া বিক্রি করতে না পারায় পদ্মা নদীতে ফেলে দিচ্ছেন তারা। 

রোববার দুপুরের দিকে রাজশাহী নগরীর আই-বাঁধ, টি-বাঁধসহ বিভিন্ন এলাকায় ভ্যানে করে চামড়া নিয়ে পদ্মা নদীতে ফেলতে দেখা যায়।

মৌসুমি ব্যবসায়ীরা জানান, আমরা যারা বাড়ি-বাড়ি গিয়ে চামড়া সংগ্রহ করেছি তারা দিন শেষে লাভে বিক্রি করতে পারিনি। লাভক্ষতির হিসাব না করেই চামড়া কিনেছি। 

সরেজমিনে দেখা গেছে, মৌসুমি ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে চামড়া ব্যবসায়ীরা চামড়া কিনে সরকার নির্ধারিত দাম তো দূরের কথা ন্যূনতম দামও দিচ্ছেন না। তারা নিজেদের ইচ্ছেমতো মৌসুমি ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে চামড়া কিনছেন।

রাজশাহী চামড়া ব্যবসায়ী গ্রুপের সভাপতি আসাদুজ্জামান মাসুদ বলেন, সরকারের নির্ধারণ করা দামে চামড়া কেনার টাকা নেই। ট্যানারি মালিকদের কাছে আমাদের বকেয়া পড়ে আছে। 

জেলা প্রাণিসম্পদ ডা. অন্তিম কুমার সরকার জানান, জেলায় আড়াই লাখের মতো পশু কোরবানি হওয়ার কথা। তবে প্রকৃত হিসাবটা এখনও প্রস্তুত হয়নি। কোরবানির আগে জেলায় গরু-মহিষ ছিল প্রায় এক লাখ। আর ছাগল ছিল দুই লাখ ২৮ হাজার। অন্যান্য পশু ছিল ৪২ হাজার। সব মিলে কোরবানির জন্য পশু ছিল ৩ লাখ ৭০ হাজার। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম