এক যুগেরও বেশি সময় পর ক্যামেরার সামনে দাঁড়াবেন রোজিনা

এক যুগেরও বেশি সময় পর ক্যামেরার সামনে দাঁড়াবেন রোজিনা

বিনোদন প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:০৮ ৬ জুলাই ২০২০  

চিত্রনায়িকা রোজিনা

চিত্রনায়িকা রোজিনা

দীর্ঘ ১৪ বছর পর সিনেমার স্ক্রিপ্ট নিয়ে ক্যামেরার সামনে দাঁড়াবেন এক সময়ের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা রোজিনা। ছবির নাম ‘ফিরে দেখা’। এতে কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করবেন তিনি। শুধু তাই নয়, সরকারি অনুদানে নির্মিত ছবিটি পরিচালনাও করবেন তিনি। চলতি বছরই ছবিটির জন্য অনুদান পেয়েছেন রোজিনা। 

ছবিটির বিষয়ে রোজিনা বলেন, অভিনয় করেই মানুষের ভালোবাসা অর্জন করেছি। তাই যতোই দূরে থাকি না কেন, অভিনয় আমাকে খুব টানে। যেহেতু সিনেমাটির প্রযোজক ও পরিচালক আমি এবং গল্পও আমার তৈরি করা, তাই একটি সাবলীল পরিবেশের মধ্য দিয়েই কাজের পরিকল্পনা করছি।

তিনি আরো বলেন, করোনার দুর্যোগ চলছে, তাই এখনই প্রাসঙ্গিক কাজগুলো শুরু করতে পারছি না। এর গল্পও এমনভাবে তৈরি তাতে বর্ষাকালে কাজ করা সম্ভব নয়। আশা করছি, করোনাদুর্যোগ কেটে গেলে এর কাজ শুরু করবো। 

১৯৭৮ সালে এফ কবির চৌধুরী পরিচালিত রাজমহল সিনেমার মাধ্যমে চলচ্চিত্র নায়িকা হিসেবে তার যাত্রা শুরু হয় রোজিনার। সেই থেকে একটানা সিনেমা জগতে বিচরণ তার। পরবর্তীতে একের পর এক সিনেমায় তিনি অভিনয় করেন। তার অভিনীত অধিকাংশ সিনেমাই সুপারহিট হয়। 

এর মধ্যে রয়েছে, চোখের মণি, সুখের সংসার, সাহেব, তাসের ঘর, হাসু আমার হাসু, হিসাব চাই, বন্ধু আমার, কসাই, জীবনধারা, সুলতানা ডাকু, মানসী, জনতা এক্সপ্রেস, অবিচার, দোলনা, দিনকাল, রসের বাইদানী, জীবনধারা, রূপবান, আলোমতি প্রেমকুমার, হুর-এ-আরবসহ প্রায় তিন শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন। 

অভিনয়ের স্বীকৃতি স্বরূপ ১৯৮০ সালে কসাই চলচ্চিত্রের জন্য জাতীয় পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রীর পুরস্কার, ১৯৮৮ সালে জীবন ধারা চলচ্চিত্রের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে জাতীয় পুরস্কার পান। এছাড়া ১৯৮৬ সালে হাম সে হায় জামানা চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য পাকিস্তান থেকে নিগার পুরস্কার অর্জন করেন। 

সবশেষ ২০০৬ সালে মতিন রহমান পরিচালিত রাক্ষুসী নামের একটি সিনেমায় অভিনয় করেন রোজিনা। ছবিটি জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ‘রাক্ষুসী’ গল্প অবলম্বনে নির্মিত হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনএ