আতালান্টার মাঠে বিধ্বস্ত ভ্যালেন্সিয়া

আতালান্টার মাঠে বিধ্বস্ত ভ্যালেন্সিয়া

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:৫৮ ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ১৬’র লড়াইয়ে ভ্যালেন্সিয়াকে পাত্তাই দেয়নি প্রথমবারের মত চ্যাম্পিয়ন্স লিগে খেলতে আসা ইতালিয়ান ক্লাব আতালান্টা। স্প্যানিশ দল ভ্যালেন্সিয়াকে প্রথম লেগে ৪-১ গোলে উড়িয়ে দিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে এক পা দিয়ে রাখলো গিয়ান পিয়েরো গাসপেরিনির দল। 

ডাচ উইং-ব্যাক হ্যানস হেটবোয়ার ১৬ ও ৬২ মিনিটে দুই গোল করেছেন। তার মাঝে বাকি দুটি গোল করেছেন জোসিপ ইলিসিস ও রেমো ফ্রেউলার।

নিজেদের স্টেডিয়ামটি উয়েফার ন্যূনতম শর্তসমূহ পূরণ করতে না পারায় ভ্যালেন্সিয়াকে বুধবার সান সিরোতে আতিথ্য দেয় আতালান্টা। যেখানে উপস্থিত ছিলো প্রায় ৪০ হাজার আতালান্টা সমর্থক। ভ্যালেন্সিয়ার হয়ে ডেনিশ চেরিশেভ এক গোল পরিশোধ করলেও তা আগামী মাসে দ্বিতীয় লেগের ম্যাচে ভ্যালেন্সিয়াকে বিদায়ের হাত থেকে কতটুকু বাঁচাতে পারবে তা নিয়ে শঙ্কা থেকেই যায়। 

প্রথমার্ধের প্রায় পুরোটাই টুর্নামেন্টে অভিষিক্ত দলটির দখলে ছিল। আট মিনিটে প্রথম সুযোগ পেয়েছিলেন আতালান্টার ক্রোয়েট মিডফিল্ডার মারিও পাসালিচ। কিন্তু ভ্যালেন্সিয়া গোলরক্ষক জাউমে ডোমেনেচ দারুণ দক্ষতায় তা কর্নারের সাহায্যে রুখে দেন। ১৬ মিনিটে আলেজান্দ্রো গোমেজের লো ক্রস থেকে হেটবোয়ারের গোলে এগিয়ে যায় আতালান্টা। মৌসুমে এটি ছিল হেটবোয়ারের প্রথম গোল। ৩০ মিনিটে ফেরান টোরেসের শট পোস্টে লাগলে ভ্যালেন্সিয়া সমতা ফেরাতে ব্যর্থ হয়। পাসালিচের পাস থেকে ইলিসিচের শক্তিশালী শট বিরতির তিন মিনিট আগে আতালান্টার ব্যবধান দ্বিগুণ করে। এর আগে মার্টিন ডি রুন ও গোমেজ দুটি সুযোগ হাতছাড়া করে।

বিরতির পর গাসপেরিনির দলের তৃতীয় গোলে ম্যাচের ভাগ্য অনেকটাই নির্ধারিত হয়ে যায়। স্বাগতিকদের হয়ে তৃতীয় গোলটি করেন সুইস মিডফিল্ডার ফ্রেউলার। পাঁচ মিনিট পর হেটবোয়ার নিজের দ্বিতীয় গোল করলে আতালান্টার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এক ভিন্ন রেকর্ড সৃষ্টি হয়। প্রথম মৌসুমে খেলতে নেমেই তাদের ১২টি গোল ১০টি ভিন্ন খেলোয়াড়ের সাহায্যে হওয়ায় এটি ছিল চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এক ভিন্ন ঘটনা।

ম্যাক্সি গোমেজ সফরকারীদের হয়ে গোল পরিশোধের দারুণ একটি সুযোগ পেয়েছিলেন। কিন্তু তার দুর্বল শট দারুণ দক্ষতায় আটকে দেন আতালান্টা গোলরক্ষক পিয়েরলুইগি গোলিনি। ৬৬ মিনিটে অবশ্য চেরিশেভ কোনো ভুল করেননি। তার এই অ্যাওয়ে গোলে আগামী মাসে মেস্তায়ায় কিছুটা হলেও আশা নিয়ে মাঠে নামবে ভ্যালেন্সিয়া।

ডেইলি বাংলাদেশ/এম