আট ঘণ্টার কম ঘুমেই শারীরিক-মানসিক সমস্যা

আট ঘণ্টার কম ঘুমেই শারীরিক-মানসিক সমস্যা

নিউজ ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১২:৪৯ ৩১ মে ২০১৯  

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

ঘুম হলো মহৌষধ। সব দাওয়ার দাওয়াই। বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ প্রতিদিন আট ঘণ্টা ঘুমানো জরুরি। অন্যথায় শারীরিক ও মানসিক সমস্যা হতে পারে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কম ঘুমানোর ফলে সবচেয়ে আগে প্রভাব ফেলে মনে। এমনকি দীর্ঘদিন ধরে কম ঘুমানোর ফলে ডিপ্রেশন বা বিষণ্নতায় ডুবে যেতে পারেন আপনি।

ঘুম ঠিকমতো না হলে কর্টিসল নামে হরমোনের ক্ষরণ বেড়ে যায়। এটি নষ্ট করে দেয় ত্বকের কোলাজেনকে। এদিকে কোলাজেনের কাজ হলো ত্বকের টানটান বাঁধন ধরে রাখা। তাই কোলাজেন গেল তো ত্বকের যৌবনও গেল। শুধু তাই নয়, চোখের নিচে কালি পড়ার সঙ্গে সঙ্গে ডার্ক সার্কেলের সংখ্যাও বেড়ে যাবে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, কম ঘুমের ফলে শরীরে সেক্স হরমোনের ক্ষরণ কমতে থাকে। শুধু তাই নয়, কমে যায় উত্তেজনা সৃষ্টিকারী হরমোন।

গবেষণায় দেখা যাচ্ছে, কম ঘুম বাড়িয়ে দেয় হৃদরোগের সম্ভাবনা। কম ঘুম হৃৎপিণ্ডের স্পন্দনে ব্যাঘাত ঘটায়। এ ছাড়া ব্লাডপ্রেসার, ডায়াবেটিসের মতো বিপজ্জনক রোগগুলোও চিরসঙ্গীর মতো আপনার শরীরে বাসা বাঁধবে।

ঘুম পর্যাপ্ত না হলে মস্তিস্কের স্মৃতির অংশটি দুর্বল হতে থাকে, যা ভুলিয়ে দিতে থাকে আপনার অতিপ্রয়োজনীয় ঘটনা বা কথাগুলোও।

কম ঘুমের ফলে মস্তিষ্ক ঠিকঠাক নির্দেশ দেয়া-নেয়া করতে পারে না। ফলে যা করতে চান, তা না হয়ে অন্য একটা ভুল কাজ হয়ে যায়। এ সমস্যা অত্যন্ত বিপদের।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ