Alexa অর্থাভাবে মেডিকেলে ভর্তি অনিশ্চিত রিকশাচালকের মেয়ে পান্নার

অর্থাভাবে মেডিকেলে ভর্তি অনিশ্চিত রিকশাচালকের মেয়ে পান্নার

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১১:৩৬ ১৭ অক্টোবর ২০১৯   আপডেট: ১৫:২৬ ১৭ অক্টোবর ২০১৯

পান্না আক্তার। ছবি: সংগৃহীত

পান্না আক্তার। ছবি: সংগৃহীত

চাঁদপুরের হাজীগঞ্জের পূর্ব বড়কুল ইউপির রিকশাচালকের মেধাবী ছাত্রী পান্না আক্তার। এ বছর মেডিকেল কলেজে ভর্তি হওয়ার যোগ্যতা অর্জন করেছেন। অথচ অর্থাভাবে তার মেডিকেলে ভর্তি অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।

মেধাবী পান্না আক্তার ২০১৯ সালে হাজীগঞ্জ ডিগ্রি কলেজ থেকে বিজ্ঞান বিভাগে সাফল্যের সঙ্গে পাশ করেন। সম্প্রতি মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে ৬৭২তম স্থান লাভ করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে ভর্তির যোগ্যতা অর্জন করেছেন।

জানা গেছে, পান্না আক্তারের বাবা মো. দুলাল একজন রিকশাচালক। মা কোহিনূর বেগম একজন গৃহিনী। তিন বোনের মধ্যে পান্না সবার ছোট।

বর্তমানে মেধাবী এই শিক্ষার্থীকে মেডিকেলে ভর্তি করানোর বা লেখাপড়া চালিয়ে নেয়ার ন্যূনতম সামর্থ্য তার পরিবারের নেই। এমন পরিস্থিতিতে সর্বস্তরের বিবেকবানদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন পান্না আক্তারের শিক্ষকরা। এছাড়া বিষয়টি ফেসবুকে দিয়েও তারা মানবিক সহায়তা চেয়েছেন। 

উল্লেখ্য, রায়চোঁ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পান্না আক্তারের শিক্ষাজীবন শুরু হয়। পরে উচ্চ মাধ্যমিকের পড়াশোনা শেষ করে হাজীগঞ্জ ডিগ্রি কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেন। তার কোচিং চলাকালীন সময়ের সম্পূর্ণ খরচ বহন করেছিল একই কলেজের সহকারী অধ্যাপক বেলাল ও তার স্ত্রী সহকারী অধ্যাপক বিলকিছ বেগম।

এ বিষয়ে রায়চোঁ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জানান, মেয়েটি আমাদের গ্রামের সন্তান। আমাদের স্কুল থেকে প্রাইমারি লেভেল শেষ করেছে। তার কৃতিত্বে আমরা আনন্দিত কিন্তু তার বাবা একজন রিকশাচালক এবং খুবই গরীব। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআর