অনুমতি ছাড়া অনুশীলনে নেমে বিপাকে ভারতীয় বোলার

অনুমতি ছাড়া অনুশীলনে নেমে বিপাকে ভারতীয় বোলার

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৭:৪৯ ৩১ মে ২০২০  

অনুমতি ছাড়া অনুশীলনে নেমে বিপাকে ভারতীয় অনুমতি ছাড়া অনুশীলনে নেমে বিপাকে ভারতীয় তারকা ক্রিকেটার

অনুমতি ছাড়া অনুশীলনে নেমে বিপাকে ভারতীয় অনুমতি ছাড়া অনুশীলনে নেমে বিপাকে ভারতীয় তারকা ক্রিকেটার

মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে পুরো ভারত জুড়ে চলছে লকডাউন। এরমধ্যেই অনুমতি ছাড়া মাঠে অনুশীলনে নেমে বিপাকে পড়লেন ভারতীয় বোলার শার্দুল ঠাকুর। তিনি একা নন, আরো তিন ক্রিকেটার একই কাণ্ড করেছেন। যার জেরে মুম্বই ক্রিকেট সংস্থার প্রশ্নের মুখে পড়তে হতে পারে তাদের।

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, লকডাউনের চতুর্থ দফায় ৩তিন ক্রিকেটার সঙ্গে নিয়ে মাঠে প্র্যাকটিসে নেমে পড়েছিলেন শার্দুল।  যদিও লকডাউনের এই দফায় স্টেডিয়াম ও স্পোর্টস কমপ্লেক্স খোলার অনুমতি রয়েছে। দর্শকশূন্য মাঠে খেলোয়াড়দের অনুশীলনেও সবুজ সংকেত রয়েছে। কিন্তু সমস্যা হলো, কেন্দ্র জানালেও এখনও পর্যন্ত এ নিয়ে কোনও ঘোষণা করেনি ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড।

ক্রিকেটাররা কবে থেকে অনুশীলন করবেন, সে বিষয়ে এখনও কিছু চূড়ান্ত হয়নি। জারি হয়নি গাইডলাইনও। তার আগেই পালঘরে আউটডোর অনুশীলন শুরু করে দেন শার্দুল। তার এলাকা রেড জোনের বাইরে ঠিকই, কিন্তু বিসিসিআইয়ের ঘোষণার আগে এমনটা করাতেই বিপাকে ভারতীয় পেসার। 

শোনা যাচ্ছে, শার্দুল ও বাকি তিন ক্রিকেটারের কাছ থেকে এ ব্যাপারে জবাবদিহি চাইতে পারে মুম্বই ক্রিকেট সংস্থা। এমনকী প্রয়োজনে তাঁদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপও গ্রহণ করা হতে পারে।

১১টি ওয়ানডে এবং ১৫টি টি-টোয়েন্টি খেলা এ তারকা বোর্ডের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ। গ্রেড সি ক্রিকেটার হিসেবে এক কোটি টাকা বেতন পান তিনি। সেই জন্য বোর্ডের নির্দেশিকা ছাড়াই আউটডোর ট্রেনিং করায় শাস্তির মুখে পড়তে পারেন।

মারণ ভাইরাসের দাপটে গত মার্চের মাঝামাঝি সময় থেকেই স্তব্ধ খেলার দুনিয়া। পিছিয়ে গিয়েছে আইপিএল। অনিশ্চয়তা মেঘ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আকাশেও। এই পরিস্থিতিতে কবে থেকে অনুশীলন শুরু, তা এখনও ঠিক করেনি বিসিসিআই। ক্রিকেটারদের সুরক্ষার তাদের কাছে এখন সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস