‘অতৃপ্ত চোখে বিদায় বলেছি’ ফেসবুক স্ট্যাটাসের তিনদিন পরই দুই বন্ধুর চিরবিদায়

‘অতৃপ্ত চোখে বিদায় বলেছি’ ফেসবুক স্ট্যাটাসের তিনদিন পরই দুই বন্ধুর চিরবিদায়

সোশ্যালমিডিয়া ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১২:৪৪ ৮ আগস্ট ২০২০   আপডেট: ২১:০৯ ১৫ আগস্ট ২০২০

সাজিদ ও সিয়াম

সাজিদ ও সিয়াম

‘অতৃপ্ত চোখে বিদায় বলেছি’ লিখে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়েছিলেন সাজিউর রহমান সাজিদ। এর তিনদিন পরই শৈশবের সহপাঠী ও বন্ধু আল মোহাইমিন সিয়ামকে সঙ্গী করে চিরবিদায় নিয়েছেন তিনি। শুক্রবার বন্ধুদের সঙ্গে বেড়াতে গিয়ে নৌকাডুবিতে মারা গেছেন এই দুই তরুণ।

মারা যাওয়া সাজিউর রহমান বগুড়ার সরকারি আজিজুল হক কলেজ থেকে ২০১৯সালে এইচএসসি পাস করেন। মোহাইমিন সিয়াম জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী। তিনি বগুড়া শহরের উপশহর নিশিন্দারা এলাকার সিকান্দার আলী সরদারের ছেলে। আর সাজিদ বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার বিহার গ্রামের শফিকুর রহমানের ছেলে।

মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে ফেসবুক স্ট্যাটাসে সাজিউর রহমান লেখেন, ‘ডুবে গেছে সে সূর্য/ যে আলোয় তোমায় চেয়েছি/ অতৃপ্ত চোখে বিদায় বলেছি।’ সেই স্ট্যাটাসের পর জীবন থেকেই বিদায় নিলেন সাজিদ ও তার বন্ধু সিয়াম।

সাজিদ ও সিয়াম দুজনই পড়তেন বগুড়ার আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন স্কুল ও কলেজে। এসএসসি পাসের পর দুজনই সরকারি আজিজুল হক কলেজে ভর্তি হন। সেখান থেকে এইচএসসি পাসের পর সিয়াম ভর্তি হন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে। আর সাজিদ দ্বিতীয়বার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন।

পলাশবাড়ী থানার ওসি মাসুদুর রহমান জানান, পলাশবাড়ী উপজেলায় সিয়ামের নানাবাড়ি। সেই বাড়িতে তারা কয়েকজন বন্ধু মিলে বেড়াতে যান। বাড়ির পাশে নদীতে গোসল করতে নামেন তারা। প্রবল স্রোতে সিয়াম ও সাজিদ নিখোঁজ হন। অন্যরা তীরে উঠে আসেন। পরে ভাটি থেকে ওই দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। বিকেলে দুই তরুণের মরদেহ পরিবারের সদস্যরা থানা থেকে নিয়ে গেছেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস/এমকেএ